1. admin@notunkurisylhet.com : notun :
মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ০৫:১২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
বাহুবলে বিজয়ী হবার পরই কৃতজ্ঞতা জানাতে লোকালয়ে ঘুরছেন চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যান বাহুবলে জমি সংক্রান্ত বিরোধ দু’পক্ষের সংঘর্ষে আহত ৫ তীর বৃদ্ধ গুরুত্বর অবস্থায় দু’জনকে সিলেট প্রেরণ বাহুবলে ফ্রিপ প্রকল্পের কৃষক গ্রুপের প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত সহকারী প্রিজাইডিং অফিসারের মৃত্যু হবিগঞ্জে ছাড়তে হচ্ছে না ৩ উপজেলা চেয়ারম্যান এর চেয়ার বাহুবলে জামানত হারিয়েছেন বর্তমান চেয়ারম্যান খলিলসহ ৯ প্রার্থী বাহুবলে জাল ভোট দেওয়ায় একজনের ১ বছরের কারাদণ্ড, আটক ২ দ্বিতীয় ধাপের উপজেলা নির্বাচনে কেন্দ্রে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টিকারীদের প্রতি পুলিশ সুপারের হুশিয়ারী বানিয়াচংয়ে সংঘর্ষে নিহত ৩! আহত শতাধিক বাহুবলে ভাইয়ের বিয়ের অনুষ্ঠানে বোনের মুত্যু

ছাত্রলীগের কাছে লাঞ্ছিত হয়ে সাংবাদিক সম্মেলন করলেন যুবলীগ কর্মী

স্টাফ রিপোর্ট
  • প্রকাশের সময় : বৃহস্পতিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ১১৫ বার পঠিত

বরগুনা-২ আসনের সংসদ সদস্য শওকত হাচানুর রহমান রিমনের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন করেছেন যুবলীগ কর্মী নজরুল ইসলাম। বৃহস্পতিবার বিকালে বরগুনা সাংবাদিক ইউনিয়ন হলরুমে লিখিত বক্তব্য দেন তিনি।

 

নজরুল ইসলাম অভিযোগ করে বলেন, বুধবার বিকাল ৪টায় পাথরঘাটা উপজেলা ছাত্রলীগের আয়োজনে ফুটবল খেলা অনুষ্ঠিত হয়। ওই খেলায় অংশ নেওয়ার জন্য ঢাকা থেকে বাংলাদেশের বিভিন্ন ক্লাবের কিছু খেলোয়াড় পাথরঘাটায় আসেন। আমি খেলোয়াড়দের নিয়ে মাঠে যাওয়ার জন্য প্রাইভেট কারে রওনা হই। পাথরঘাটা আকন মার্কেটের সামনে পৌঁছলে স্থানীয় সংসদ সদস্য শওকত হাচানুর রহমান রিমন মোটরসাইকেল বহর নিয়ে আমাদের প্রাইভেটকারের পেছনে এসে পৌঁছান।

 

এ খেলায় তিনিই ছিলেন প্রধান অতিথি। তিনি আমাদের প্রাইভেটকারকে সাইড দিতে বলেন। রাস্তা সংকীর্ণ হওয়ার কারণে ড্রাইভারের তাৎক্ষণিক সাইড দিতে কিছুটা বিলম্ভ হয়। তখন আমি উদ্যোগ নিয়ে সংসদ সদস্যের গাড়িবহর পার করে দেওয়ার ব্যবস্থা করি।

 

পরে খেলার মাঠে উপস্থিত হয়ে প্রধান অতিথির আসন গ্রহণ করেন এমপি। আমিও খেলোয়াড়দের নিয়ে মাঠে উপস্থিত হই। পাথরঘাটা পৌর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শাহাজাদাসহ ৪-৫ জন আমাকে সংসদ সদস্যের কথা বলে মঞ্চে ডেকে নিয়ে যান এবং আমাকে শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করেন।

 

এ ব্যাপারে সংসদ সদস্য শওকত হাচানুর রহমান রিমন বলেন, নজরুল একটা বাজে ছেলে। ওর অপকর্মে এলাকাবাসী অতিষ্ঠ। ওর নামে অনেক মামলা আছে। প্রতিদিন ওর বিরুদ্ধে আমার কাছে নালিশ আসে। আমি ওকে বেয়াদবি করতে নিষেধ করেছি।

 

এটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর
© All rights reserved © 2024
ডিজাইন ও কারিগরি সহযোগিতায়: FT It Hosting